ঢাকার হাসপাতালগুলোতে কমতে শুরু করছে রোগীর চাপ।২৫ টি আইসিইউ ফাঁকা রয়েছে ডিএনসিসি আইসোলেশন সেন্টারে।

0
20

ভোলা নিউজ২৪ডটকম।।ঢাকার করোনা হাসপাতালগুলোতে কমতে শুরু করছে রোগীর চাপ। নেই আইসিইউর জন্যও হাহাকার। চিকিৎসকরা বলছেন, লকডাউনের পাশাপাশি মানুষের মধ্যে সচেতনতা কিছুটা বাড়ায় কমছে করোনার সংক্রমণ।
সপ্তাহখানেক আগেও করোনা হাসপাতাল গুলোর সামনে রোগীদের ভীড় ছিলো চোখে পড়ার মতো। আইসিইউ বা বেড না পেয়ে ছোটাছুটি করছেন এক হাসপাতাল থেকে আরেক হাসপাতালে। তবে, এখন চিত্র অনেকটাই স্বাভাবিক। করোনা চিকিৎসার জন্য বরাদ্দ হাসপাতালগুলোতে বেড ফাকা থাকায় ভোগান্তি ছাড়াই মিলছে আইসিইউ বা সাধারণ বেড।
করোনার চিকিৎসার জন্য কুর্মিটোলা, ডিএনসিসি আইসোলেশন সেন্টার, মুগদাসহ প্রায় প্রতিটি হাসপাতালে ২০ থেকে ৫০ টি করে সাধারণ বেড ফাঁকা। ডিএনসিসি করোনা আইসোলেশন সেন্টারের পরিচালক এ কে এম নাসির উদ্দিন জানান, ১০০ আইসিইউ বেডের মধ্যে অন্তত ২৫ টি আইসিইউ ফাঁকা রয়েছে ডিএনসিসি আইসোলেশন সেন্টারে। করোনা সংক্রমনের হার কমার এ ধারা ধরে রাখতে সবাইকে আরো সচেতন হওয়ার পরামর্শ হাসপাতাল সংশ্লিষ্টদের।
এদিকে, অনলাইনে নমুনা পরীক্ষার সিরিয়াল পেতে ভোগান্তি না থাকলেও লকডাউনে পরীক্ষা কেন্দ্রে আসতে ভোগান্তির কথা জানান রোগীরা। শনিবার সরকারি ছুটির দিনে হাসপাতাল গুলোতে করোনার নমুনা পরীক্ষা কেন্দ্রেও ভিড় ছিল না রোগীদের।

LEAVE A REPLY